রোজা ভঙ্গের কারণ সমূহ ও যেসব কারনে রোজা মাকরুহ হয়।


বিসমিল্লাহির রহমানির রহিম

অবশ্যই সম্পুর্ণ লেখাটি পড়বেন,
সম্পুর্ণ লেখাটি পড়লে বুঝতে সুবিধা হবে।
রোজা ভঙ্গের কারণ সমূহ ও যেসব কারনে রোজা মাকরুহ হয়।
পবিত্র রমজান মাসে আমরা সবাই রোজা রাখার চেষ্টা করি।মহান আল্লাহ রোজা ফরজ করেছে।কিন্তু কিছু কিছু কারনে রোজা ভঙ্গে যায়।আবার কিছু কিছু কারনে রোজা মাকরুহ হয়ে যায়।রোজা  ভঙ্গ ও মাকরুহ নিয়ে আমাদের অনেকের ভুল ধারনা রয়েছে।

রোজা ভঙ্গের কারণ সমূহঃ

  • ইচ্ছাকৃত ভাবে পানাহার করলে রোজা ভেঙ্গে যায়।
  • ইচ্ছাকৃত ভাবে কোনো খাবার খেলে।
  • পুরো রমজান মাস জুড়ে রোজার নিয়ত না করলে।
  • স্ত্রী সহবাস করলে রোজা ভেঙ্গে যায়।
  • সূর্যাস্ত হয়েছে মনে করে,ইফতার করার পর দেখা গেল সুর্যাস্ত হয়নি এমন হলে রোজা ভেঙ্গে যাবে।
  • দাঁত থেকে ছোলা পরিমান খাবার গিলে ফেললে।
  • ধুমপান করলে রোজা ভেঙ্গে যায়।
  • বমি গিলে ফেললে। 
  • রাত্রি আছে মনে করে সোবহে সাদিকের পর খাবার খেলে রোজা ভেঙ্গে যায়।
  • ইচ্ছাকৃতভাবে বীর্যপাত ঘটালে  রোজা ভেঙ্গে যায়।
  • মহিলাদের ঋতুস্রাব হলে।
  • ইনজেকশনের মাধ্যমে দেহে কিছু প্রবেশ করালে রোজা ভেঙ্গে যাবে।

যেসব কারনে রোজা মাকরুহ হয়ঃ

  • বিনা প্রয়োজনে কোনো কিছু দাঁত দিয়ে চিবালে।
  • যে কোনো ধরনের কয়লা, মাজন, বা তুথপেস্ট ব্যবহার করা মাকরুহ
  • গোসল করা ফরয তবে এই অবস্থায় গোসল না করে সারাদিন থাকলে রোজা  মাকরুহ হয়ে যায়।
  • কোন রোগীর জন্য নিজের রক্ত দিলে রোজা মাকরুহ হয়ে যায়।
  •  পিপাসার বা ক্ষুধা জন্য অস্থিরতা প্রকাশ করা।
  • রোজা রেখে গিবত, মিথ্যা ও সয়তানি করলে রোজা মাকরুহ হয়ে যায়।
  • থুথু একত্রিত করে গিলে ফেললে।
  •  বিনা প্রয়োজনে খাবারের স্বাদ দেখা।
সবাইকে শেয়ার করে সওয়াবের অংশীদার হন।

বিঃদ্রঃ এই ব্লগে বিভিন্ন কনটেন্ট,ভিডিও ও ছবি বিভিন্ন ওয়েবসাইট/বই থেকে নেওয়া হতে পারে।আমরা আপনার মূল্যবান কনটেন্ট,অন্যের উপকারের লক্ষে শেয়ার করে থাকি।তবে আপনার যদি কোনও আপত্তি থাকে,তাহলে আমাদের কাছে অভিযোগ করুন।আপনার কনটেন্ট সরিয়ে ফেলা হবে।

0 Response to "রোজা ভঙ্গের কারণ সমূহ ও যেসব কারনে রোজা মাকরুহ হয়।"

Post a Comment

Contact Form

Name

Email *

Message *